Entertainment

‘আমাকে বাধ্য করা হয়েছিল’,এত বছর পর ‘আকসর’ প্রযোজকের বিরুদ্ধে বোমা

সৌন্দর্য প্রতিযোগিতা জিতে লাইমলাইটে উঠে এসেছিলেন সেলিনা জেটলি। ২০০১ সালে মিস ইন্ডিয়া খেতাব জিতেছিলেন এই সুন্দরী। এরপর বলিউডে আত্মপ্রকাশ ফিরোজ খানের হাত ধরে। ‘জানশিন’ ছবিতে ফারদিন খানের নায়িকা ছিলেন সেলিনা। সেই সময় বলিউডের অন্যতম সেক্সি নায়িকা হিসাবে নজর কেড়েছিলেন এই সুন্দরী। ইমরান হাশমির ‘আকসর’ (২০০৬) ছবির নায়িকা হওয়ার কথা ছিল সেলিনার, কিন্তু সবকিছু ঠিকঠাক হয়ে যাওয়ার পরেও এই প্রোজেক্ট থেকে সরে দাঁড়াতে বাধ্য হন সেলিনা। কিন্তু কেন? ‘সিরিয়াল কিসার’ ইমরানকে চুমু খেতে আপত্তি? 

শনিবার এক সাংবাদিক আকসরের সেটে তারা শর্মা এবং সেলিনার একটি ছবি শেয়ার করেন। সঙ্গে লেখেন, আজও ভাবতে অবাক লাগে কেমনভাবে সেলিনাকে বাধ্য করা হয়েছিল এই ছবি থেকে সরে দাঁড়াতে। সেই পোস্টের কমেন্ট বক্সেই মনের ঝাঁপি উজাড় করে দেন সেলিনা। অভিনেত্রী লেখেন, ‘হ্যাঁ, আমাকে বাধ্য করা হয়েছিল আকসর থেকে সরে দাঁড়াতে। কারণ প্রযোজকরা যখন জানতে পারে প্রায় একই সময় ইমরান হাশমির বিপরীতে আমি আরও একটা ছবি করছি, জওয়ানি দিওয়ানি, তাঁরা আমাকে আর চাননি। আমার মন ভেঙেছিল, গোটা পরিস্থিতিটা যেভাবে দাঁড়িয়েছিল তা খুব দুর্ভাগ্যজনক। ’

এরপর সেলিনার জায়গায় আকসর ছবিতে কাস্ট করা হয় উদিতা গোস্বামীকে। উদিতা-ইমরানের পাশাপাশি এই ছবিতে দেখা মিলেছিল দিনো মরিয়া এবং তারা শর্মার। অনন্ত মহাদেবন পরিচালিত এই সাসপেন্স থ্রিলার বক্স অফিসে ভালো ব্যবসা করেছিল। ছবির ‘ঝলক দিখলা জা’ গান তো আজও ফেরে লোকের মুখে মুখে। হিমেশ রেশমিয়ার এই গান মিউজিক চার্টের একাধিক রেকর্ড ভেঙেছিল। 

আপতত স্বামী ও তিন সন্তানকে নিয়ে অস্ট্রিয়াতে থাকেন সেলিনা। ২০২০ সালে হিন্দুস্তান টাইমসকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে সেলিনা জানিয়েছিলেন বিয়ের পর বলিউড ছাড়ার সিদ্ধান্ত সম্পূর্ণরূপে তাঁর ব্যক্তিগত। আউটসাইডার হয়ে ভালো চরিত্র খুঁজতে খুঁজতে হাঁফিয়ে উঠেছিলেন সেলিনা, সেইজন্যই ছবি থেকে বিরতি নেন তিনি। সেলিনার কথায়, ‘আউটসাইডারদের প্রতি মুহূর্তে নিজেকে প্রমাণ করতে হয়। আমি সেই দৌড়ে ক্লান্ত হয়ে পড়েছিলাম। তাই ভাবলাম এবার একটা বিরতি নেওয়া জরুরি’। শেষবার রাম কমল মুখোপাধ্যায়ের শর্টফিল্ম ‘সিজন গ্রিটিংসে’ পর্দায় দেখা গিয়েছিল অভিনেত্রী সেলিনা জেটলিকে। ২০২০ সালে মুক্তি পেয়েছিল সেই ছবি।

আরও পড়ুন-লাল লেহেঙ্গা পরে আমেরিকায় তুমুল নাচলেন অক্ষয়! হল রণবীর সিং-এর সঙ্গে তুলনা,ভিডিয়ো

 

এই খবর ইউনিকাস প্রতিস্থাপন করেনি তাই এর কোনো কৃতিত্ব অথবা দ্বায়িত্ব ইউনিকাস এর নয়। দয়া করে এর উৎস টি খুঁটিয়ে দেখুন। এই পোস্ট টি আপত্তিকর হলে, তা অবিলম্বে মুছে ফেলতে আমাদের সত্বর যোগাযোগ করুন।